1. dailyfulki04@gmail.com : dfulki :
  2. fulki04@yahoo.com : Daily Fulki : Daily Fulki
সোমবার, ০৮ অগাস্ট ২০২২, ০২:২০ অপরাহ্ন

আশুলিয়ায় মারধরের ৪দিন পর মারা গেলেন পোশাক শ্রমিক উজ্জল

  • আপডেট : সোমবার, ৪ জুলাই, ২০২২
  • ১৮১ বার দেখা হয়েছে

আশুলিয়া প্রতিনিধি : আশুলিয়ায় পূর্ব বিরোধের জেরে রড দিয়ে এলোপাতাড়ি পিটিয়ে আহত হওয়ার ৪ দিনের মাথায় চিকিৎসাধীন অবস্থায় রাকিবুল ইসলাম উজ্জল (২৪) নামের এক পোশাক শ্রমিকের মৃত্যু হয়েছে। এ ঘটনায় নিহতের মরদেহ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য ঢাকার সোহরাওয়ার্দী হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।

সোমবার (৪ জুলাই) সকাল ৯ টারদিকে সাভারের এনাম মেডিকেল কলেজ অ্যান্ড হাসপাতালে চিকিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা যান পোশাক শ্রমিক উজ্জল। এর আগে গত শুক্রবার ভাদাইলের মধ্যপাড়া এলাকায় ডেকে নিয়ে তার উপর হামলা করেন প্রতিপক্ষরা।

নিহত রাকিবুল ইসলাম উজ্জল বগুড়া জেলার শারিয়াকান্দি থানার রফিকুল ইসলামের ছেলে। তিনি ভাদাইলে ভাড়া থেকে ঢাকা ইপিজেডের প্যাক্সার বাংলাদেশ লিমিটেড নামের একটি পোশাক কারখানায় চাকরি করতেন।
অভিযুক্তরা হলেন-জুয়েল ও সুমনসহ প্রায় ৬-৭ জন। তবে তাদের বিস্তারিত পরিচয় পাওয়া যায়নি। তারা ওই এলাকায় সংঘবদ্ধ হয়ে আধিপত্য বিস্তার করে বিভিন্ন মানুষকে মারধর করেন বলে জানা গেছে।

নিহতের মামাতো ভাই সজীব বলেন, রাকিবুলকে যখন আমি হাসপাতালে নিয়ে যাই, তখন জিজ্ঞেস করেছিলাম যে কারা তাকে মেরেছে। সে জানিয়েছে, জুয়েল নামে একজন তাকে ফোন করে ডেকে নিয়ে যায়। সেখানে গিয়ে দেখে আগে থেকেই ৬-৭ জন লোহার রডসহ প্রস্তুত আছে তাকে মারার জন্য। এসময় দৌঁড় দিয়ে পালানোর চেষ্টা করলে জুয়েল তাকে হাত টেনে ধরে মাটিতে ফেলে দেয়। এসময় সবাই তাকে রড দিয়ে এলোপাতাড়ি পিটিয়ে গুরুতর আহত করে। পরে ‘আমি খবর পেয়ে আহত অবস্থায় উজ্জলকে উদ্ধার করে প্রথমে নারী ও শিশু হাসপাতালে নিয়ে যাই। অবস্থা খারাপ হওয়ায় এনাম মেডিক্যাল হাসপাতালে রেফার্ড করেন ডাক্তাররা।

তিনি আরো বলেন, আমার ফুপাতো ভাই রাকিবুলের বন্ধু রাব্বানির একটি মেয়ের সাথে প্রেমের সম্পর্ক ছিল। সেই মেয়েকে বিয়ে করে সুমন নামের এক ছেলে। বিয়ের পরেও ওই মেয়ের সাথে রাব্বানির যোগাযোগ ছিল। বিষয়টি জানতে পেরে বেশ কয়েকদিন আগে জুয়েল ও সুমনসহ কয়েকজন রাব্বানীকে মারতে আসে। কিন্তু রাব্বানী আমার ভাই রাকিবুলসহ সেখানে বেশ কয়েকজন একসাথে থাকায় জুয়েলরা মার খেয়ে পালিয়ে যায়। পরে বিষয়টি সমাধানও হয়। কিন্তু পূর্বের রেশ ধরে গত শুক্রবার বিকেল ৬ টারদিকে রাকিবুলকে ফোন করে ডেকে নিয়ে রড দিয়ে বেধড়ক মারধর করে।

এব্যাপারে আশুলিয়া থানার উপ-পরিদর্শক রাজু মন্ডল বলেন, খবর পেয়ে হাসপাতাল থেকে নিহতের মরদেহ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য রাজধানীর সোহরাওয়ার্দী হাসপাতালের মর্গে পাঠানো হয়েছে। এ ঘটনায় গতকাল মামলা দায়ের করা হয়েছে। প্রাথমিকভাবে জানতে পেরেছি পূর্ব বিরোধের জের ধরে তাদের মধ্যে মারামারির ঘটনা ঘটেছে।

শেয়ার করুন

এই বিভাগের আরও খবর

সত্যের সন্ধানে নির্ভীক কিছু তরুণ সংবাদকর্মী নিয়ে আমাদের পথচলা

তথ্য মন্ত্রণালয়ের অধীন ডিএফপি’র মিডিয়া তালিকাভুক্ত ঢাকা জেলার একমাত্র স্থানীয় পত্রিকা