মোবাইল উৎপাদনের ক্ষেত্রে বিশ্বের দ্বিতীয় বৃহত্তম দেশ ভারত। এমনটাই দাবি করেছেন দেশটির মন্ত্রী রবি শংকর প্রসাদ।

সোমবার এক পরিসংখ্যান প্রকাশ করে তিনি জানিয়েছেন, ভারতে আপাতত ৩০০ মোবাইল ম্যানুফ্যাকচারিং ইউনিট রয়েছে। যেখান থেকে ৩৩০ মিলিয়ন মোবাইল হ্যান্ডসেট তৈরি হয়েছে।

প্রসাদের রিপোর্ট অনুযায়ী, ২০১৪ সালে দেশে কেবল ২টি মোবাইল ম্যানুফ্যাকচারিং প্লান্ট ছিল, যেখান থেকে ৬০ মিলিয়ন মোবাইল বানানো হয়েছিল। ২০১৯ সালে ভারতে মোবাইল ফোনের ভ্যালু দাঁড়িয়েছে ৩০ বিলিয়ন ডলার, যা ২০১৪ সালে কেবল ৩ বিলিয়ন ডলার ছিল।

রবি শঙ্কর প্রসাদ বলেন, এখন ভারতকে ইএসডিএম খাতের একটি গন্তব্য হিসাবে বিবেচনা করার এবং বিশ্বের পরবর্তী বৃহত্তম প্রযুক্তি কেন্দ্র গড়ে তোলার লক্ষ্যে উপনীত হয়েছে সরকার। ‘ইন্ডিয়ান ইলেকট্রনিক্সকে এগিয়ে নিতে’ সরকার আজ (মঙ্গলবার) নতুন প্রকল্প ঘোষণা করবে।

অ্যাপল সহ কয়েকটি স্মার্টফোন প্রতিষ্ঠান স্থানীয়ভাবে ফোন উত্পাদন শুরু করার বিষয়ে বিবেচনা করছে। ইতিমধ্যে অনেকে ভারতে তাদের পণ্য উত্পাদন শুরু করেছে।

এদিকে রবি শঙ্কর প্রসাদের টুইট শেয়ার করে শাওমি ইন্ডিয়ায় সিইও মানু কুমার জৈন জানান, এটি সত্যি খুব গর্বের। আজ থেকে ৫ বছর আগে আমরা ভারতে প্রথম ম্যানুফ্যাকচারিং প্লান্ট বানাই এবং আজ আমাদের ৯৯ শতাংশ স্মার্টফোন ভারতে তৈরি হয়। আপনাকে জানিয়ে রাখি অ্যাপলও তাদের আইফোন তৈরি ভারতে শুরু করতে পারে।