জাবি প্রতিনিধি : জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক ফারজানা ইসলামের অপসারণ দাবিতে বিক্ষোভ মিছিল ও সমাবেশ করেছেন আন্দোলনরত শিক্ষক-শিক্ষার্থীরা।

আজ বৃহস্পতিবার দুপুর সোয়া ১ টায় বিশ্ববিদ্যালয়ের সমাজবিজ্ঞান অনুষদের সামনে থেকে ‘দুর্নীতির বিরুদ্ধে জাহাঙ্গীরনগর’ ব্যানারে মিছিলটি শুরু হয়। মিছিলটি ক্যাম্পাসের কয়েকটি সড়ক ঘুরে শহীদ মিনারের পাদদেশে ছবি চত্বরে গিয়ে শেষ হয়।

আরও পড়ুন >> ছাত্রলীগ সোনার ছেলেদের সংগঠন হবে: জাবি ভিসি

এদিকে ছবি চত্বরে বৃহস্পতিবার সকাল ১০টা থেকে ছাত্র ইউনিয়নের বিশ্ববিদ্যালয় সংসদের ২৯তম কাউন্সিল উপলক্ষে দুর্নীতি ও সন্ত্রাসবিরোধী আলোকচিত্র প্রদর্শন করা হয়।

উপাচার্য অপসারণের দাবিতে করা মিছিলটি সেখানে গিয়ে সংহতি জানায়। পরে সেখানে ছাত্র ইউনিয়নের উদ্যোগে দুর্নীতি ও সন্ত্রাসবিরোধী সমাবেশ হয়।

আরও পড়ুন >> জাবি ভিসির বিরুদ্ধে ২২৪ পৃষ্ঠার ‘দুর্নীতির খতিয়ান’

সমাবেশে অর্থনীতি বিভাগের অধ্যাপক আনু মুহাম্মদ বলেন, ‘দুর্নীতি ও সন্ত্রাস সহোদরের মতো। দুর্নীতি মানেই হচ্ছে জনগণের সম্পদ ব্যক্তির পকেটে নেয়া। এভাবে দুর্নীতি করতে হলে সর্বজনের অধিকার খর্ব করতে হয়। আর সেখানে দুর্নীতি হয় সেখানে সন্ত্রাস দানা বাঁধে। এই সন্ত্রাস মানুষের স্বপ্ন ভেঙে দেয়। ব্যক্তির প্রতিদিনের জীবনকে বিভীষিকাময় ও নিরাপত্তাহীন করে তোলে।’

তিনি আরও বলেন, ‘আজ বিশ্ববিদ্যালয়ে সন্ত্রাসের বিরুদ্ধে আন্দোলন করলে সরকার ক্ষুব্ধ হয়। এই বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্যের বিরুদ্ধে আনা দুর্নীতির অভিযোগের কোনো সুরাহা হয়নি। এখানে দুর্নীতি আর সন্ত্রাস একসাথে চলছে। তবে এর বিরুদ্ধে লড়াইটা অব্যাহত রাখতে হবে। তাহলে একদিন সন্ত্রাস ও দুর্নীতির মূলোৎপাটন হবে।’

আরও পড়ুন >> জাবিতে মুগ্ধতা ছড়াচ্ছে অতিথি পাখিরা

ছাত্র ইউনিয়ন জাবি সংসদের কার্যকরী সদস্য রাকিবুল হক রনির সঞ্চালনায় অন্যান্যদের মাঝে বক্তব্য রাখেন নৃবিজ্ঞান বিভাগের অধ্যাপক মির্জা তাসলিমা সুলতানা, অধ্যাপক সাঈদ ফেরদৌস, বাংলা বিভাগের অধ্যাপক তারেক রেজা, জাহাঙ্গীরনগর সাংস্কৃতিক জোটের সাধারণ সম্পাদক শহিদুল ইসলাম পাপ্পু, ছাত্র ইউনিয়নের কার্যকরী সদস্য মিখা পিরেগু, সমাজতান্ত্রিক ছাত্র ফ্রন্টের বিশ্ববিদ্যালয় শাখার সহ-সভাপতি সম্পদ অয়ন মারান্ডি, সমাজতান্ত্রিক ছাত্র ফ্রন্টের (মার্কসবাদী) বিশ্ববিদ্যালয় শাখার সাধারণ সম্পাদক সুদীপ্ত দে প্রমুখ।