মুখে বয়সের ছাপ রুখতে ভরসা রাখুন দুই উপাদানে (ভিডিও)

0
44
রান্নাঘরের দুটি উপাদানেই ফিরবে ত্বকের তারুণ্য। বেকিং সোডা এবং নারকেল তেল। অনেকেই রুপচর্চায় নারকেল তেলকে ময়েশ্চারাইজার, ব্রণ নিরাময় এবং বলিরেখা দূর করতে ব্যবহার করে থাকেন। আবার বেকিং সোডারও রয়েছে অসংখ্য গুণ। ত্বকের উজ্জ্বলতা ধরে রাখতে এই অসমান্য উপাদানটির কেরামতি সবারই জানা। তবে জেনে নিন এই দুই উপাদানের সাহায্যে কীভাবে আটকাবেন বলিরেখা?

আরো পড়ুন : মাইক্রোওয়েভ ব্যবহার করেন? অসুখ এড়াতে কিছু সাবধানতা অবশ্যই মানুন

ত্বকে নারকেল তেলের ব্যবহার

ত্বকে নারকেল তেলের ব্যবহারকীভাবে ব্যবহার করবেন?

এক টেবিল চামচ নারকেল তেল ও এক টেবিল চামচ বেকিং সোডা একসঙ্গে মিশিয়ে ঘন পেস্ট তৈরি করে নিন। এবার মুখে হালকা ম্যাসাজ করে ব্যবহার করুন। এভাবে পাঁচ মিনিট ত্বকে রেখে মুখ ধুয়ে নিন। ভালো ফল পেতে দুই দিন অন্তর এই মাস্কটি মুখে ব্যবহার করে পান বলিরেখাহীন ত্বক।

আরো পড়ুন : প্রেসার লো? জেনে নিন করণীয়

ত্বকের তারুণ্যভাব ফিরিয়ে আনে নারকেল তেল 

নারকেল তেলে রয়েছে উচ্চা মাত্রার ফ্যাটি অ্যাসিড ও ভিটামিন ই। যা একটি ভালো ময়েশ্চারাইজার হিসেবে কাজ করে। ছত্রাকবিরোধী উপাদান থাকায় নারকেল তেল ব্রণের বিরুদ্ধে প্রতিরোধ গড়ে তোলে। এই তেল ত্বকের গভীরে প্রবেশ করে ত্বককে আর্দ্র করে, তারুণ্যভাব ফিরিয়ে আনে এবং ত্বকের হারানো উজ্জ্বলতা ফিরিয়ে আনতে সাহায্য করে।

বেকিং সোডার ফেস মাস্ক

বেকিং সোডার ফেস মাস্কত্বককে প্রাকৃতিকভাবে উজ্জ্বল করে বেকিং সোডা 

বেকিং সোডা এমন একটি পণ্য যা আপনার ত্বককে প্রাকৃতিকভাবে উজ্জ্বল করবে এবং ত্বকের অনেক সমস্যারও সমাধান করতে সাহায্য করবে। এতে ব্যাকটেরিয়া নাশক, ছত্রাক নাশক ও প্রদাহ নাশক উপাদান আছে। এসব উপাদান ব্রণের বিরুদ্ধে যুদ্ধ করে। সেইসঙ্গে দাগহীন ও মসৃণ ত্বক পেতে সাহায্য করে।

আরো পড়ুন : ত্বকের বিশেষ যত্নে ‘স্কিন ফাস্টিং’

ভিডিওটি দেখতে এখানে ক্লিক করুন।