সকাল দেব ‘সৃষ্টিকর্তার নির্দেশে’ চুল কাটেন না ৪০ বছর

0
25

ভারতে চুল জট পাকানো অন্যরকম এক ব্যক্তিকে খুঁজে পাওয়া গেছে। যিনি দীর্ঘ ৪০ বছর ধরে মাথার চুল কাটাননি। শুধু তাই নয়, চার দশকে একবারের জন্যও চুলে পানি লাগাননি। ফলে তার চুলে সৃষ্টি হয়েছে দীর্ঘ জট। তার দাবি, স্বপ্নে একদিন সৃষ্টিকর্তা তাকে চুল কাটতে নিষেধ করেছেন। ফলে চুলকে তিনি আশীর্বাদ হিসেবে মনে করেন এবং সৃষ্টিকর্তার নির্দেশেই চুলে হাত দেন না।

অদ্ভুত জট চুলের এই ব্যক্তির নাম সকাল দেব। তার বয়স ৬৩ বছর। তার বাড়ি ভারতের পূর্বাঞ্চলীয় বিহার প্রদেশের মুঙ্গার জেলায়। বর্তমানে জট বাঁধা তার মাথার চুল দৈর্ঘ্যে ছয় ফুট লম্বা হয়েছে। মাথার ওপর একটা পাগড়ি পেঁচিয়ে রাখেন তিনি।

স্বপ্নে পাওয়া নির্দেশ সম্পর্কে সকাল দেব বলেন, ‘৪০ বছর আগে এক রাতে স্বপ্নে সৃষ্টিকর্তা আসেন। তিনি আমাকে চুল কাটতে নিষেধ করেন। ঘুম থেকে উঠে দেখি চুলে জট বেঁধে গেছে। সেই রাতের পর থেকে সৃষ্টিকর্তার এই আদেশ কখনো অমান্য করিনি।’ সৃষ্টিকর্তার দর্শন পাওয়ায় সেদিন থেকেই ধূমপান এবং মদ্যপান ছেড়ে দেন সকাল দেব।

ভারতে স্বঘোষিত এমন অনেক সাধু রয়েছে। যাদের মাথায় দীর্ঘ জট। কিন্তু সকাল দেবের চুলে জটের ধরন আলাদা। যখনই বাড়ি থেকে বের হন তার চুলের জট সাদা কাপড় দিয়ে বেঁধে রাখেন তিনি। নিরিবিলি বিচরণ ও বিনয়ী ব্যবহারের জন্য এলাকাবাসী তাকে ‘মহাত্মা জি’ নামে ডাকেন।

sakal dev india2

সকাল দেব ভারতের বন বিভাগে দীর্ঘ সময় সরকারি কর্মকর্তা হিসেবে চাকরি করেছেন। ব্যক্তিগত জীবনে তার তিন ছেলে ও তিন মেয়ে রয়েছে। সকাল দেবের চুলে এই দীর্ঘ জটের কারণে অনেকেই তার কাছ থেকে বিভিন্নরকম ওষুধ নিয়ে যান। বিশেষ করে সন্তান লাভের আশায় অনেকেই সকাল দেবের আশীর্বাদ নিতে আসেন।

তবে সকাল দেবের চাইতেও বিশ্বে দীর্ঘ জটওয়ালা চুলের মানুষ রয়েছে। বিশ্বের সবচেয়ে দীর্ঘ জট চুলের অধিকারী হচ্ছে যুক্তরাষ্ট্রের ফ্লোরিডার বাসিন্দা আশা ম্যান্ডেলা (কেনীয় বংশোদ্ভূত)। তার বয়স ৫৫ বছর। ২০১৮ সালে তিনি ১১০ ফুট লম্বা জটের চুল বানিয়ে বিশ্ব রেকর্ড গড়েন।