ভারতের পর এবার পাকিস্তানে নতুন প্রদেশের ঘোষণা দিলো আইএস

0
115

পাকিস্তানে নিজেদের নতুন ‘প্রদেশ’ খোলার ঘোষণা দিয়েছে চরমপন্থী গোষ্ঠি আইএস। আইএসএর বৈশ্বিক প্রপাগান্ডা বিষয়ক মুখপাত্র ‘আমাক নিউজ এজেন্সি’ এই সপ্তাহে পাকিস্তানের মাসতুনে এক পুলিশ অফিসারকে হত্যা ও কোয়েটায় হামলা করে ২০ জনকে হত্যার শিকার করে নেয় এবং ‘ইসলামিক স্টেট পাকিস্তান প্রভিনেন্স’ এর ঘোষণা দেয়। ভয়েস অব আমেরিকা

আইএসএর প্রদেশ ঘোষণার দাবী নিয়ে এই পর্যন্ত পাকিস্তানের সরকারের কাছ থেকে কোন তথ্য পাওয়া যায় নি। তবে ইসলামাবাদ বলে আসছে, পাকিস্তানে আইএসএর কোন উপস্থিতি নেই।

জিহাদীদের কার্যক্রম নিয়ে বিশ্লেষণ করা, সাইট ইন্টিলিজেন্স গ্রুপ জানিয়েছে, ভারত ও পাকিস্তানে দাবিকৃত এই দুইটি প্রদেশ আইএস ‘খোরাসান প্রদেশ’ বা আইএসকেপি এর অধীনে পরিচালনা করবে। মধ্যপ্রাচ্য ভিত্তিক এই সন্ত্রাসী গোষ্ঠীটি ২০১৫ সালে আফগানিস্তান, পাকিস্তান ও মধ্য এশিয়ার সীমান্ত অঞ্চলে নিজেদের আঞ্চলিক কার্যক্রম বিস্তারের জন্য ‘খোরাসান প্রদেশ’ নামটি ব্যবহার করে।

এর আগে শুক্রবার আমাকে আইএস ‘হিন্দ প্রদেশ’ নামে ভারতে নিজেদের উপস্থিতি দাবি করে, তারা কাশ্মীরের সোপিয়ায় ভারতীয় সেনাদের সঙ্গে সংঘর্ষের দায় স্বীকার করে নেয়। ২১ এপ্রিল শ্রীলংকায় ইস্টারের হামলায় ২৫০জনকে হত্যার দায় স্বীকার করেছিলো আইএস।

পর্যবেক্ষকরা বলছেন, সিরিয়া ও ইরানে নিজেদের খেলাফত হারানোর পর বিকল্প হিসেবে আইএস এখন ভারতীয় উপমহাদেশে ‘খোরাসান প্রদেশ’ কার্যকর করে তোলার কথা ভাবছে। তবে তারা ভারত-পাকিস্তানের নিজেদের ভৌগোলিক অবস্থানের কোন সঠিক তথ্য দেয় নি। সাইট গ্রুপের নির্বাহী রিতা কাটজ বলেন, ‘ভারত ও পাকিস্তানে কার্যত আইএসএর কোন প্রতিষ্ঠানিক উপস্থিতি না থাকলেও এই ঘোষণা আইএসএর কার্যক্রম ও পরিকল্পনা সম্পর্কে একটি বিশেষ বার্তা দেবে।’ এর আগে, ২৯ এপ্রিল এক ভিডিওবার্তায় আইএস নেতা আবু বকর আল বাগদাদী নতুন করে ফিরে আসার ঘোষণা দিয়েছিলেন।