বিএনপি নেতাদের সঙ্গে বৈঠক শেষে যা বললেন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী

স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান কামাল বলেছেন, বিএনপির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীরের নেতৃত্বে একটি প্রতিনিধদল আমাদের কাছে এসেছিলেন। তারা তাদের দলের চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়ার স্বাস্থ্য বিষয়ে একটি লিখিত বক্তব্য আমাকে দিয়েছেন। তার স্বাস্থ্যের বিষয়ে বেশকিছু অনুরোধ করেছেন। তারা বলেছেন, খালেদা জিয়া এখন বেশ অসুস্থ এবং এর মাত্রা দিন দিন বেড়ে যাচ্ছে। তার চিকিৎসার জন্য এর আগে আবেদন করা ইউনাইটেড হাসাপাতালের পাশাপাশি আবার নতুন করে আজ (৯ সেপ্টেম্বর) অ্যাপোলো হাসপাতালে ভর্তির আবেদন করেছেন।

রোববার (৯ সেপ্টেম্বর) সচিবালয়ে বিএনপি মহাসচিবের নেতৃত্বে ৭ সদস্যের প্রতিনিধি দলের সাথে বৈঠক শেষে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান কামাল সাংবাদিকদের এসব কথা বলেন।

তিনি বলেন, আমরা ইতোমধ্যে স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের সুরক্ষা ও সেবা বিভাগের সচিব এবং আইজি প্রিজনকে নির্দেশ দিয়েছি। তারা খালেদা জিয়ার আগে থেকেই চিকিৎসা করা ডাক্তার ও সরকারি ডাক্তার সমন্ময়ে একটি মেডিকেল টিম গঠন করবেন। বিগত সময়ের মতো এবারও তাকে উন্নত চিকিৎসা করাবেন। গঠিত মেডিকেল টিমের ডাক্তাররা যা পরামর্শ দেবেন আমরা সেই অনুসারে ব্যবস্থা গ্রহণ করব। তারা যদি বলে সরকারি হাসপাতালে তার প্রয়োজনীয় চিকিৎসার ব্যবস্থা নেই, তাহলে আমরা পরবর্তী ব্যবস্থা গ্রহণ করব।

বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান কামাল বলেন, আদালতের নির্দেশে এর আগে খালেদা জিয়ার সেবার জন্য একজন মহিলাকে সেখানে থাকার অনুমতি দিয়েছি। বর্তমানে খালেদার জিয়ার জন্য ফিজিও থেরাপিষ্ট কারাগারে এক দিন পরপর থেরাপি দিচ্ছেন। এর সাথে একজন সার্বক্ষণিক ডাক্তার ও ফার্মাইসিস্ট নিয়োগ দেয়া আছে। তারা সার্বক্ষণিক তার চিকিৎসা করছেন। আমরা একজন বন্দির জেলকোড অনুসারে সর্বোচ্চ চিকিৎসা দিচ্ছি।

মন্ত্রী বলেন, তারপরও আজ বিএনপি নেতৃবৃন্দ ইউনাইটেড ও অ্যাপোলো হাসপাতালে ভর্তির যে আবেদন করেছন সেটা যদি গঠিত মেডিকেল টিম মনে করেন তাহলে সে অনুসারে আমরা ব্যবস্থা নেব। তবে কারাগারের চিকিৎসা সংক্রান্ত যে নীতিমালা রয়েছে তার সর্বোচ্চ ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

বেসরকারি হাসপাতালে খালেদা জিয়াকে চিকিৎসা করালে নীতিমালার ব্যত্যয় ঘটবে কিনা এমন প্রশ্নের জবাবে মন্ত্রী বলেন, ডাক্তাররা যদি বলেন, সরকারি হাসপাতালে তার চিকিৎসা সংশ্লিষ্ট ব্যবস্থা নেই তাহলে সেই অনুযায়ী ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

বিএনপি সব সময় খালেদা জিয়ার শারীরিক অবস্থা খারাপের যে কথা তুলে আসছেন তা কি কারা চিকিৎসকরা কখনও আপনাদের বলেছেন, সাংবাদিকদের এমন প্রশ্নের জবাবে মন্ত্রী বলেন, না এ ধরনের কথা আমরা তাদের কাছে শুনিনি।

এর আগে বেলা তিনটার দিকে বিএনপির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীরের নেতৃত্বে আসা ৭ সদস্যের একটি প্রতিনিধি দলের সঙ্গে বৈঠকে বসেন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান কামাল।

বৈঠকে মির্জা ফখরুল ছাড়াও দলটির স্থায়ী কমিটির সদস্য ড খন্দকার মোশারফ হোসেন, জমির উদ্দিন সরকার, রফিকুল ইসলাম মিয়া, মির্জা আব্বাস, ড. আব্দুল মঈন খান, নজরুল ইসলাম খান উপস্থিত ছিলেন।