ওমানে নিযুক্ত রাষ্ট্রদূতের সাথে যুবলীগের কেন্দ্রীয় সাংগঠনিক সম্পাদক বদির সাক্ষাৎ

ওমান থেকে এইচ এম হুমায়ুন কবির: গতোকাল ওমানের রাজধানী মাস্কাটে দেশটিতে নিযুক্ত রাষ্ট্রদূত গোলাম সারওয়ারের সাথে সৌজন্যে সাক্ষাৎ করেছেন বাংলাদেশ আওয়ামী যুবলীগ কেন্দ্রীয় কমিটির সাংগঠনিকসম্পাদক বদিউল আলম বদি।

এসময় বদি রাষ্ট্রদূতের কাছে ওমানে কর্মরত প্রবাসীদের ব্যাপারে খোজ খবর নেন এবং প্রবাসীদের কল্যাণে তার সরকারের গৃহীত বিভিন্ন কর্মকান্ডের কথা তুলে ধরেন।

তার দাবি অতিথের যেকোন সরকারের চাইতে তার সরকার প্রবাসীদের কল্যাণে অনেক বেশি কাজ করে যাচ্ছে এবং ভবিষ্যতেও মাননীয় প্রধান মন্ত্রীর নেতৃত্বে এই ধারা অব্যহত থাকবে।

সাংবাদিকদের এক প্রশ্নের জবাবে বদি বলেন কোটা আন্দোলনে যুবলীগের কোন কর্মী বা নেতা অসহযোগীতা করেনি বা কোন সাংবাদিক বা সাধারণ ছাত্রদের গায়ে হাত দেয়া তো দূরের কথা বরং সাধারণ ছাত্রদেরপাসে থেকে সহযোগিতা না করলে বিএনপি জামাত পরিস্থিতি আরো বেশি ঘোলাটে করতো।

এসময় বদি বর্তমান ছাত্র নেতাদের সমালোচনা করে বলেন আগে ছাত্ররা হলে থাকতো আর বর্তমানে ছাত্ররা ফ্লাটে থাকে আর আগে ছাত্ররা রিক্সা কিংবা হেটে কেম্পাসে আসতো কিন্তু এখন আসে প্রাডোতে করে।

এসব বিভিন্ন কারনে বর্তমান ছাত্র নেতাদের সঙ্গে আগেকার ছাত্র নেতাদের নৈতিক বা আদর্শিক যথেষ্ট অমিল রয়েছে বলেও মনে করেন সাবেক এই ছাত্র নেতা।

তার দাবি এতো কিছুর পরও মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সরাসরি হস্তক্ষেপে বর্তমান ছাত্র লীগ,যুবলীগ,  আওয়ামী লীগ আগের তুলনায় অনেক বেশি সুসংগঠিত  শক্তিশালী।

আরেক প্রশ্নের জবাবে সারাদেশে যুবলীগের বিচ্ছিন্ন কিছু বৈরী আচরণ, কেউ যদি কোন সংলগ্ন আচরণ কিংবা কোন অন্যায় কাজে লিপ্ত হয় তাহলে  দায় কোন ভাবেই তার দল বা সরকার নিতে পারেনা বলেওমন্তব্য করেন যুবলীগের এই নেতা 

এসময় অন্যান্যদের মাঝে উপস্থিত ছিলেন বাংলাদেশ আওয়ামী যুবলীগ ওমানের  তৌহিদুল আলম, ওয়াহেদ আহম্মদ রাজন, সাদেক হাসান,  মোঃ  রায়হান উদ্দিন, মোঃ মনির উদ্দির খানসহ আরো অনেকে।

এসময় রাষ্ট্র দূত উপস্থিত নেতা কর্মীদের উদ্দেশ্যে বলেন ওমান একটি শান্তিপূর্ণ  অরাজনৈতিক দেশ  দেশে রাজনৈতিক কর্মকাণ্ড সম্পুর্ণরুপে নিশিদ্ধ, তার পরও দেশ  দলের প্রতি ভালোবাসা থেকেও যদি কোনরকমের সভা সমাবেশ করতে হয় তাহলে সেটি যেনো অবস্যই দেশটির আইন কানুন মেনে যথাযথ কতৃপক্ষের অনুমতি নিয়ে করা হয় 

রাষ্ট্রদূত নেতা কর্মীদের অবহিত করেন যদি কোন সভা সমাবেশ করতে দূতাবাসের সহযোগিতা প্রয়োজন হয় তাহলে সেটি যেনো অবস্যই কমপক্ষে ছয় মাস আগে দূতাবাসকে লিখিত আকারে জানানো হয় তাহলেইদূতাবাস প্রয়োজনীয় ব্যাবস্থা নিতে সক্ষম হবে ।

 

আলোচনার এক পর্যায়ে যুবলীগ ওমান শাখার তৌহিদুল আলম অবৈধ প্রবাসীদের যাতে সাধারন ক্ষমার আওতায় এনে নিরাপদে দেশে ফেরত পাঠানো যায়  ব্যাপারে বাংলাদেশ দূতাবাসকে ওমান সরকারেরসংশ্লিষ্টদের কাছে আবেদন করে প্রয়োজনীয় ব্যাবস্থা নিতে অনুরোধ করেন। তৌহিদ আরো জানান শোকের এই মাসে কেন্দ্রীয় নেতাদের পরামর্শ ক্রমে বঙ্গবন্ধুর সোনার বাংলা বাস্তবায়নে দেশে স্বাধীনতা বিরোধী সকলশক্তিকে রুখে দিয়ে তার দল বীজয় নিয়েই ঘরে ফিরতে ঐক্যবদ্ধ; তার নেতৃত্বে বাংলাদেশ আওয়ামীলীগ ওমান শাখা ঐক্যবদ্ধ রয়েছে এবং আগামী নির্বাচনে ওমান থেকে তার যুবলীগের নেতা কর্মীদের নিয়ে নির্বাচনেদলকে বিজয়ী করার লক্ষে কাজ করতে বাংলাদেশে অবস্থান করবেন।