বিআরটিএ অফিস খোলা থাকবে শনিবারও

ফুলকি ডেস্ক: যানবাহনের ফিটনেস সনদ দেয়া ও নবায়ন, চালকদের ড্রাইভিং লাইসেন্স দেয়া ও নবায়নসহ জরুরি সেবা দিতে সারা দেশের বাংলাদেশ রোড ট্রান্সপোর্ট অথরিটির (বিআরটিএ) অফিস এখন থেকে সপ্তাহের শনিবার থেকে বৃহস্পতিবার ৬ দিন সকাল ৯টা থেকে রাত ৯টা পর্যন্ত খোলা থাকবে।

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নির্দেশে এই সিদ্ধান্ত নেয়া হয়েছে বলে জানান সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের।

গতকাল আওয়ামী লীগ সভাপতি শেখ হাসিনার ধানমন্ডি কার্যালয়ে আয়োজিত সংবাদ সম্মেলনে তিনি বলেন, ‘পরবর্তী নির্দেশ না দেয়া পর্যন্ত এটা চলবে।’

ওবায়দুল কাদের বলেন, ‘নিরাপদ সড়ক নিশ্চিতের তাগিদে সামপ্রতিক সময়ে প্রতিদিনই বিআরটিএ অফিসে সাধারণের ভিড় বাড়ছে। সকলেই যানবাহনের ফিটনেস সনদ, ড্রাইভিং লাইসেন্সসহ একাধিক সেবা নিতে প্রতিদিনই বিআরটিএ’র বিভিন্ন অফিসে আসছেন। সবাইকে দ্রুত এবং জরুরি সেবা দিতেই সরকার এই সিদ্ধান্ত নিয়েছে।

এ সময় তিনি বলেন, বেপরোয়া যান চালনায় মানুষ হত্যা হলে সর্বোচ্চ ৫ বছর জেলের বিধান এবং হত্যার উদ্দেশ্যে যানবাহন চালানোর ফলে হত্যা হলে মৃত্যুদণ্ডের বিধান রাখা হয়েছে। বেপরোয়া যান চালনায় মানুষ হত্যা হলে ১৯৮৩ সালের আইনে তিন বছর জেল-এর বিধান ছিল, সেটাই স্টেক হোল্ডারদের সঙ্গে আলোচনা করে ৫ বছর জেলের বিধান করা হয়েছে। এ আইনে জামিনের কোনো সুযোগ নেই। ওবায়দুল কাদের বলেন, হত্যার উদ্দেশ্যে যানবাহন চালালে এবং তা প্রমাণ হলে তা ৩০২ ধারায় চলে যাবে এবং তাতে সর্বোচ্চ শাস্তি মৃত্যুদণ্ড।’

মহাসড়কে ছোট যানবাহনের কারণে বিভিন্ন দুর্ঘটনা ঘটে, এ বিষয়টি আইনে আছে কিনা এক সাংবাদিক জানতে চাইলে ওবায়দুল কাদের বলেন, ‘সবকিছু আইনে আসে না। কিছু বিধি-বিধান আছে। সেগুলো সবাইকে মেনে চলতে হয়। বিধি-বিধান আইনে যুক্ত করতে গেলে অনেক বড় হয়ে যাবে। ’

এদিকে গাড়ির মালিক, ড্রাইভার, হেলপার গ্রেপ্তার হয়েছে। তাদের রিমান্ডে নেয়া হয়েছে এবং যদি প্রমাণিত হয় তারা হত্যার উদ্দেশ্যে গাড়ি চালিয়েছে তাহলে ৩০২ ধারায় বিচার করার সুযোগ আছে বলেও জানান তিনি।