এবার ৩ শিক্ষার্থীর ওপর তুলে দেয়া হলো ট্রাক, নিহত ১

কুমিল্লা সংবাদদাতা: রাজধানীতে বাসচাপায় মিম ও রাজিব নামের দুই শিক্ষার্থীর নিহতের ঘটনার রেশ না কাটতেই এবার কুমিল্লায় স্কুল থেকে বাড়ি ফেরা তিন শিক্ষার্থীর ওপর উঠিয়ে দেয়া হয়েছে বালুবাহী ট্রাক।

এতে ঘটনাস্থলেই আকলিমা আক্তার নামের দশম শ্রেণির এক ছাত্রী নিহত হয়েছে। এ দুর্ঘটনায় আহত হয়েছে একই শ্রেণির আরও দুই শিক্ষার্থী।

মঙ্গলবার দুপুর ২টার দিকে ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়কের চান্দিনা উপজেলার গোমতা এলাকায় এ ঘটনা ঘটে। নিহত স্কুলছাত্রী মুরাদনগর উপজেলার বাবুটি পাড়া গ্রামের জয়নাল আবেদীনের মেয়ে।

হাইওয়ে পুলিশ ও প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, চান্দিনার গোমতা ইসাকিয়া উচ্চ বিদ্যালয়ের দশম শ্রেণির ছাত্রী আকলিমাসহ অন্যান্য সহপাঠী স্কুলে ক্লাস শেষে মহাসড়কের পাশ দিয়ে বাড়ি ফিরছিল। গোমতা এলাকায় পৌঁছালে আকলিমা ও তার সহপাঠীদের ওপর একটি বালুবাহী ট্রাক তুলে দেয় চালক।

Comilla-accident

এতে তিন স্কুলছাত্রী ট্রাকের নিচে চাপা পড়ে। সেই সঙ্গে ঘটনাস্থলেই আকলিমা আক্তার নিহত হয়। এ সময় তার সহপাঠী তামান্না ও মেহেদী হাসান আহত হয়। আহতদের উদ্ধার করে হাসপাতালে নেয়া হয়।

এদিকে, সহপাঠীদের ওপর ট্রাক তুলে দেয়ার খবর পেয়ে ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়ক অবরোধ করে বিক্ষুব্ধ শিক্ষার্থীরা। এ সময় দাউদকান্দির ইলিয়েটগঞ্জ থেকে চান্দিনা পর্যন্ত দীর্ঘ যানজটের সুষ্টি হয়। খবর পেয়ে হাইওয়ে পুলিশ ও স্থানীয় ইউপি চেয়ারম্যান মামুনুর রশিদ ঘটনাস্থলে পৌঁছে ঘাতক ট্রাক চালককে আটক ও ছাত্রী হত্যার বিচারের আশ্বাস দিলে প্রায় এক ঘণ্টা পর অবরোধ তুলে নেয় শিক্ষার্থীরা।

ইলিয়েটগঞ্জ হাইওয়ে ফাঁড়ির ইনচার্জ মনিরুল ইসলাম বলেন, নিহত স্কুলছাত্রীর শিক্ষক, সহপাঠী ও এলাবাসীর দাবি ঘাতক ট্রাকচালককে আইনের আওতায় আনা। পুলিশ তাকে আটক করতে অভিযান চালাচ্ছে। তবে এখনো বালুবাহী ট্রাক ও চালককে আটক করা সম্ভব হয়নি। তাকে আটকে অভিযান চালাচ্ছে পুলিশ।