ধামরাইয়ে ফুটবল খেলা নিয়ে সংঘর্ষে আহত ব্যক্তি নিহত

ধামরাই প্রতিনিধি: ধামরাইয়ে নান্নার ইউনিয়নের কান্দকাউলি গ্রামে শুক্রবার ফুটবল খেলাকে কেন্দ্র করে দু’পক্ষের মধ্যে দফায় দফায় সংঘর্ষে ১০জন আহত হয়। আহতদের মধ্যে আবদুল খালেক রবিবার সকালে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা যান। নিহত খালেক ওই গ্রামের কলিম উদ্দিনের ছেলে। এ ঘটনায় ১২-১৪ জনের নামে থানায় অভিযোগ দিয়েছে বলে জানান নিহতের চাচা অভিযোগের বাদি আফজাল হোসেন।

গত শুক্রবার বিকেলে কান্দকাউলি গ্রামের যুবকরা একই গ্রামের মৃত জয়নাল আবেদীনের ছেলে বর্গাচাষী জাহাঙ্গীরের আবাদী জমিতে। এতে ক্ষেতের মাটি শক্ত হওয়ার আশঙ্কায় জাহাঙ্গীর বাধা দেন। এসময় তার উপর হামলা করে কয়েকজন যুবক।

এ ঘটনাকে কেন্দ্র শুক্রবার রাতে জাহাঙ্গীর গংদের সঙ্গে আফজাল গংদের লাঠিসোটা নিয়ে সংঘর্ষ বাধে। এতে গুরুতর আহত হয় আফজাল, জাহাঙ্গীর, গাজীউর রহমান, মোহাম্মদ আলী, শুকুর আলী, আবদুল খালেকসহ প্রায় ১০ জন। আহতদের প্রথমের উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়। এদের মধ্যে মুমূর্ষূবস্থায়  খালেক ও মোহাম্মদ আলীকে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে স্থানান্তর করা হয়েছিল।

ধামরাই থানার অফিসার ইনচার্জ মোহাম্মাদ রিজাউল হক বলেন, ‘অভিযোগ পেয়েছি তদন্ত করে ব্যবস্থা নেওয়া হবে’।