তিন স্ত্রী ছাড়াও ৬ প্রেমিকা ছিল ইমরান খানের

ফুলকি ডেস্ক: ১৯৭০ এর দশকে পাকিস্তান দলের ভারত সফরের সময় ইমরান-জিনাতের পরিচয়। ইমরানের সঙ্গে জিনাত বহু বার ইংল্যান্ডে গিয়েছিলেন বলে গুঞ্জন রয়েছে। কিন্তু জিনাত ইমরানের হাত ধরে দেশ ছাড়তে রাজি না হওয়া জুটি ভেঙে যায়।

জেমাইমা খান

১৯৯৫ সালে ব্রিটিশ ধনকুবের পরিবারের কন্যা জেমাইমা গোল্ডস্মিথকে বিয়ে করেন ইমরান। জেমাইমা ধর্মান্তরিতও হন। নয় বছর ছিল তাঁদের সম্পর্ক ছিল। ২০০৪ সালে তাদের ছাড়াছাড়ি হয়ে যায়।

বেনজির ভুট্টো

ক্রিস্টোফার স্ট্যান্ডফোর্ডের লেখা ‘দ্য বায়োগ্রাফি-ইমরান খান’এ ইমরান-বেনজির এর মধ্যে সম্পর্ক তৈরি হয়েছিল বলে উল্লেখ করা হয়েছে। দুইজনের সম্পর্কে পারিবারিক সম্মতিও ছিল। কিন্তু তারা স্বেচ্ছায় সম্পর্ক ভেঙে দেন।

রেহাম খান

খুব অল্প সময়ের জন্য হলেও ইমরান-রেহামের বৈবাহিক সম্পর্ক ছিল। ২০১৫ সালের শুরুতে ইমরান এই বিবাহ স্বীকার করেন। গণমাধ্যমকে দেয়া একটি সাক্ষাৎকারে ইমরান খান বলেছিলেন, ‘আমি সাধারণত রেহাম খানকে নিয়ে মুখ খুলি না। এখন এটা বলব যে, জীবনে বেশ কিছু ভুল করেছি। এর মধ্যে দ্বিতীয় বিয়েটা জীবনের সবচেয়ে বড় ভুল ছিল।’ ২০১৫ সালের ৩০ অক্টোবর ইমরান ও রেহামের সম্পর্ক শেষ হয়।

ডেনিস ডি লুইস

ডেনিস বিখ্যাত আমেরিকান মডেল। ইমরান-ডেনিসের সম্পর্ক একসময় মিডিয়ায় ঝড় তুলেছিল।

সিটা হোয়াইট

২০০৪ সালে মারা যান সিটা। সিটা এবং ইমরানের সম্পর্ক নিয়ে গণমাধ্যমে মুখরোচক খবর প্রকাশিত হয়েছিল। কিন্তু শেষ পর্যন্ত ইমরান এই সম্পর্ক অস্বীকার করে।

স্টিফেন বেকহ্যাম

ব্রিটিশ অভিনেত্রী স্টিফেনের সঙ্গে ইমরানের সম্পর্ক ছিল বলে ভারত ও পাকিস্তানে খবর বেরিয়েছিল। এ বিষয়ে ইমরান অবশ্য কোনো মন্তব্য করেননি।

কেট ফিজপ্যাটরিক

কেট অস্ট্রেলিয়ান অভিনেত্রী। কেট ও ইমরানের খুব অল্প সময়ের সম্পর্ক ছিল।

বুশরা মানেকাকে

২০১৫ সালে দ্বিতীয় বিয়ের পর মাত্র ১০ মাসের ব্যবধানে তৃতীয়বারের মতো বিয়ে করেন ইমরান। তৃতীয় স্ত্রী বুশরা মানেকা প্রসঙ্গে তিনি বলেন, ‘বিয়ের আগে আমি তার চেহারার দিকে এক পলকও তাকাইনি। আমি বিয়ের প্রস্তাব দিয়েছি তাকে না দেখেই।’

৩৯ বছর বয়সী বুশরা মানেকা সম্পর্কে ইমরান খান আরও বলেন, ‘তিনি একজন ধর্মীয় পণ্ডিত। ভক্তদের কাছে পথপ্রদর্শক তিনি। স্বামী ছাড়া অন্য কোনো পুরুষের সামনে আসেন না তিনি। এলেও মুখ নেকাবে ঢাকা থাকে।’