এবার ধর্ষণের অভিযোগে নির্বাসিত শ্রীলঙ্কান ক্রিকেটার ধনুষ্কা গুনাথিলকা

ফুলকি ডেস্ক: ধর্ষণের অভিযোগে শ্রীলঙ্কান ক্রিকেটার ধনুষ্কা গুনাথিলকাকে নির্বাসিত করা হয়েছে৷ দক্ষিণ আফ্রিকার বিরুদ্ধে দ্বিতীয় টেস্টের তৃতীয় দিনের খেলার পর হোটেলে বিদেশি মহিলা ডেকে এনে এক বন্ধুর সঙ্গে মিলে ধর্ষণ করেন এই ক্রিকেটার৷ সেই মহিলা গুনাথিলকার বন্ধুর বিরুদ্ধে ধর্ষণের অভিযোগ এনেছেন৷

এরপরই গুনথিলকার বন্ধুকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ৷ মহিলার ধর্ষণের দিন হোটেলেই অভিযুক্ত বন্ধুর সঙ্গে গুনথিলকা একই ঘরে ছিলেন বলে জানা গেছে৷ পুরো ঘটনা খতিয়ে দেখছে পুলিশ৷ সিংহলি ক্রিকেটারকে নির্বাসনে পাঠিয়ে তার বিরুদ্ধে তদন্ত শুরু করেছে শ্রীলঙ্কার ক্রিকেট বোর্ডও৷

গ্রেফতার হওয়া গুনথিলকার বন্ধু শ্রীলঙ্কান, সেই সঙ্গে তার কাছে ব্রিটিশ পাসপোর্ট থাকার উল্লেখ করেছেন অভিযোগকারিণী মহিলা৷

পুলিশ সূত্রে জানা গেছে, বিদেশি মহিলা নরওয়ের বাসিন্দা৷ ক্রিকেটারের বন্ধুর বিরুদ্ধে ধর্ষণের অভিযোগ দায়ের করেছেন ঐ মহিলা৷

এর আগেও আইসিসি’র আচরণবিধি ভঙ্গ করার অপরাধে শ্রীলঙ্কান ক্রিকেটার গুনথিলকাকে শাস্তি পেতে হয়েছে৷ এবার ধর্ষণকাণ্ডের সঙ্গে যুক্ত থাকার অভিযোগে তাকে নির্বাসিত করল সিংহলি ক্রিকেট বোর্ড৷ চলতি বছরের জানুয়ারি মাসে বাংলাদেশের মাটিতে হওয়ায় ত্রিদেশীয় টি-টোয়েন্টি সিরিজে বাংলাদেশের ব্যাটসম্যান তামিম ইকবালকে সেন্ড অফ করে বিতর্কে জড়ান এই ক্রিকেটার৷ তার বিরুদ্ধে আইসিসি’র লেভেন ওয়ান আইন ভঙ্গের অভিযোগ প্রমাণিত হয়েছিল৷ শাস্তি হিসেবে তার ডেমেরিট পয়েন্ট কেটে নেওয়া হয়েছিল৷ এবার অবশ্য আরও বড় শাস্তির মুখে সিংহলি ক্রিকেটার৷