লক্ষ্মীপুরে বিয়ের জন্য স্কুল শিক্ষিকাকে পিটিয়ে জখম

লক্ষ্মীপুর সংবাদদাতা : লক্ষ্মীপুরে বিয়ের প্রস্তাবে রাজি না হওয়ায় খাদিজা খানম নামে এক স্কুল শিক্ষিকাকে পিটিয়ে আহত করা হয়েছে। এসময় তার বাবাকেও মারধর করা হয়। শনিবার বিকেলে বিদ্যালয় থেকে ফেরার পথে সদর উপজেলার বেড়ির মাথা এলাকায় এ ঘটনা ঘটে।
ভুক্তভোগী উপজেলার খন্দকারপুর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে সহকারী শিক্ষিকা বলে জানা যায়।
পুলিশ ও স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, ওই শিক্ষিকাকে কয়েক বছর ধরে স্থাণীয় বখাটে সাইদুর রহমান পরান উত্ত্যক্ত করে আসছে। সম্প্রতি সাইদুর খাদিজাকে বিয়ের প্রস্তাব দেন। এতে রাজি না হওয়ায় পরান ক্ষিপ্ত হয়ে তাকে হুমকি দেন।
পরে শনিবার বিকেলে স্কুল থেকে বাড়ির কাছাকাছি পৌঁছালে কয়েক সহযোগীকে নিয়ে পরান খাদিজার গতিরোধ করে তুলে নেওয়ার চেষ্টা করেন। এক পর্যায়ে খাদিজার মাথায় আঘাত করে রক্তাক্ত করা হয়।
এসময় খাদিজার বাবা সেকান্তর মিয়া মেয়েকে উদ্ধার করতে এগিয়ে এলে তাকেও মারধর করা হয়। তাদের উদ্ধার করে সদর হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। অভিযুক্ত পরান পৌরসভার পশ্চিম লক্ষ্মীপুর এলাকার জাহাঙ্গীর আলম নয়নের ছেলে।
লক্ষ্মীপুর সদর মডেল থানার পুলিশ পরিদর্শক (তদন্ত) মো. মোসলেহ উদ্দিন জানান, স্কুল শিক্ষিকার উপর হামলার ঘটনায় আইনানুগ ব্যবস্থা নেওয়া হবে।