কোটা সংস্কারের পক্ষে থাকা শিক্ষকদের ছাগল বললেন প্রধানমন্ত্রীর উপপ্রেস সচিব!

বিশেষ প্রতিবেদন: কোটা সংস্কারের পক্ষে থাকা শিক্ষক-শিক্ষার্থীদের সমালোচনা করেছেন প্রধানমন্ত্রীর উপপ্রেস সচিব আশরাফুল আলম খোকন।

শুক্রবার তার ফেসবুক ওয়ালে এক স্টাটাসে এ সমালোচনা করেন তিনি।

পাঠকদের সুবিধার্থে তার ফেসবুক স্টাটাসটি হুবহু তুলে ধরা হলো:

“গতকাল ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ে কোটা বিরোধী শিক্ষকদের এক সমাবেশে অধ্যাপক আকমল হোসেন বলেছেন, “শেখ হাসিনা মুক্তিযুদ্ধ করেছেন? হাসিনার বাবা কি মুক্তিযুদ্ধ করেছেন ( উনি যেভাবে বলছেন এইভাবেই লিখলাম)?”
সামনে অবস্থানরত কিছু শিক্ষক – শিক্ষার্থী তখন হাততালি দিচ্ছেন।এই যদি হয় এই মেধাবীদের গুরুদের মেধা’র অবস্থা, তাহলে মেধাবীদের অবস্থা কি হবে।

প্রধানমন্ত্রীর উপসচিব আশরাফুল আলম খোকন এর ফেসবুক স্টাটাস

আরো কয়েকজন শিক্ষককে দেখলাম নিপীড়নবিরোধী শিক্ষকের ব্যানারে সেখানে ছিলেন । এর মধ্যে একজনকে চিনি যিনি ছাত্রীকে যৌন নির্যাতনের দায়ে এখনো বিশ্ববিদ্যালয় থেকে বহিস্কৃত।

আরেকজন শিক্ষককে চিনি যিনি ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ে ভর্তি হয়েছিলেন মুক্তিযোদ্ধা কোটায়। মন্ত্রীর পুত্রবধু কোটায় চাকুরী পেয়েছেন।

আরেকজন শিক্ষককে দেখলাম যিনি তিনটি বিশ্ববিদ্যালয়ে চাকুরী পেয়েছেন আওয়ামীলীগের ব্যানারে থেকে। শুধু বিশ্ববিদ্যালয়ের বাসা বরাদ্দ না পাওয়ায় এখন ঘোর আওয়ামী বিরোধী।

আরেকজন আমার সরাসরি শিক্ষক ছিলেন। যিনি ওনার এনজিওর কাজগুলো ক্লাসওয়ার্ক দিয়ে ছাত্রছাত্রীদের মাধ্যমে করিয়ে নিতেন। ওনার মতামতের বিরুদ্ধে যে শিক্ষার্থী তর্ক- বিতর্ক করতো তাকে ফেল এর কাছাকাছি নাম্বার দিতেন।

ওনারা এখন জাতির বিবেক হবার অপেক্ষায় আছেন। ব্যাপার না, এটা স্বাধীন বাংলাদেশ। পাগল ছাগল সবাই এইখানে বাস করে।”