অঘটনময় বিশ্বকাপের সেমিতে ক্রোয়েশিয়ার জয়ের পাঁচ কারণ

ফুলকি ডেস্ক: বিশ্বকাপে অঘটনের পালা অব্যাহত। সেমিফাইনালে এ বারের অন্যতম ফেভারিট ইংল্যান্ডকে হারিয়ে ইতিহাসে প্রথম বার ফাইনালে উঠেছে ক্রোয়েশিয়া।

এক ঝলকে দেখে নেওয়া যাক ক্রোয়েশিয়ার জয়ের পাঁচটি প্রধান কারণ।

১. প্রথমার্ধে একাধিক বার সুযোগ এলেও তেমন কিছুই করতে পারেননি ইংল্যান্ডের ফুটবলাররা। বহু বার আক্রমণে গেলেও একটিমাত্র গোলেই সন্তুষ্ট থাকতে হয়েছে ইংল্যান্ডকে।

England Footballerপ্রথমার্ধে একাধিক সুযোগ হারানোর ফল ভুগতে হল তাদের।

২. ক্রোয়েশিয়া কোচ জ্লাটকো দালিচের ছকে আটকে গেলেন হ্যারি কেন। লিয়োনেল মেসিকে আটকে দেওয়ার পড়ে হ্যারি কেনকেও খেলতে দেবেন না, বলেছিলেন ক্রোয়েশিয়ার কোচ।

Harryসেটা তিনি করালেন দলের দুই ডিফেন্ডারকে দিয়ে। হ্যারি কেন বল পেলেই তাঁর সামনে চলে আসছিলেন দু’জন ফুটবলার।

৩. ইংল্যান্ডের অনভিজ্ঞ ডিফেন্স ক্রোয়েশিয়ার কাজটা অনেক সহজ করে দিয়েছিল।

Englandক্রোয়েশিয়ার আক্রমণ মোকাবিলা করার ক্ষেত্রে বা সেই আক্রমণ ফিরিয়ে দেওয়ার ক্ষেত্রে এই অনভিজ্ঞতা প্রকট হয়ে উঠছিল বার বার।

৪. এ দিন খেলার গতি কমিয়ে দিয়েছিলেন হ্যারি কেনরা। হয়তো প্রচণ্ড গতিতে খেলতে অভ্যস্ত ক্রোয়েশিয়ার ছন্দ নষ্ট করে দেওয়াই ছিল প্রধান লক্ষ্য। প্রথমার্ধে এই পরিকল্পনা সফল সাউথগেটের।

Croatia

কিন্তু দ্বিতীয়ার্ধে দুর্দান্ত ভাবে ঘুরে দাঁড়াতে শুরু করলেন ক্রোটরা। যার নেপথ্যে পেরিসিচ।

৫. অতিরিক্ত সময়ে ভয়ঙ্কর আক্রমণাত্মক হয়ে উঠলেন ক্রোটরা। ১০৯ মিনিটে গোল করলেন মারিয়ো মাঞ্জুকিচ। এর নেপথ্যেও পেরিসিচ।

MandzuKIcট্রিপিয়ার মাথার উপর দিয়ে হেড করে তিনি পাস দেন মাঞ্জুকিচকে। ঠান্ডা মাথায় গোল করে ইংল্যান্ডের স্বপ্নভঙ্গ করলেন মাঞ্জুকিচ।