ডোবার আবর্জনা সরানোর পর ভেসে উঠল ইমনের মরদেহ

রাজধানীর কামরাঙ্গীরচরের ডোবার পানিতে পড়ে নিখোঁজ হওয়া শিশু ইমনের মরদেহ অবশেষে উদ্ধার করা হয়েছে। ফায়ার সার্ভিস অ্যান্ড সিভিল ডিফেন্স ও ঢাকা দক্ষিণ সিটি কর্পোরেশনের (ডিএসসিসি) কর্মীরা ডোবার পানিতে জমে থাকা ময়লা-আবর্জনা অপসারণ করার একপর্যায়ে শিশু ইমনের মরদেহ ভেসে ওঠে।

ফায়ার সার্ভিসের স্টেশন অফিসার শহীদুল ইসলাম জানান, বিকেল ৩টার সময় শিশুর মরদেহ উদ্ধার করা হয়। মরদেহ পুলিশের কাছে হস্তান্তরের প্রক্রিয়া চলছে।

জানা গেছে, রংপুর জেলার গঙ্গাচাড়া থানার শিলারপাড়া গ্রামের মৃত রজব আলীর ছেলে ইমন পূর্বরসুলপুর দুই নম্বর গলিতে জনৈক মুকুলের বাড়িতে মা কুলসুম বেগম ও মামা শামসুল আলমের সঙ্গে থাকতো। গতকাল (রোববার) দুপুর আনুমানিক ১টার দিকে সে বেরিবাঁধ সংলগ্ন ডোবায় জমে থাকা ময়লা-আবর্জনায় তার বন্ধু হৃদয়ের সঙ্গে খেলছিল। একপর্যায়ে হৃদয় ময়লা-আর্বজনাতে ডুবে যেতে থাকলে ইমন তাকে বাঁচাতে যায়। এ সময় সেও তলিয়ে যায়। স্থানীয় অধিবাসীরা শিশুদের চিৎকার ও ডুবে যেতে দেখে ছুটে আসে।

তখন স্থানীয় বাসিন্দারা হৃদয়কে উদ্ধার করতে সমর্থ হয়। তবে পানিতে ডুবে যায় ইমন। খবর পেয়ে ফায়ার সার্ভিসের কর্মীরা ছুটে এসে উদ্ধার অভিযান শুরু করে। সন্ধ্যা ঘনিয়ে আসায় উদ্ধার অভিযান আজ সকাল ৭টা পর্যন্ত স্থগিত করা হয়। সকালে ফায়ার সার্ভিস ও ডিএসসিসির কর্মীরা ডোবার ময়লা-আবর্জনা অপসারণ করে। একপর্যায়ে ইমনের মরদেহ ভেসে ওঠে।