খালেদা জিয়ার জামিন স্থগিত করল আপিল বিভাগ

স্টাফ রিপোর্টার : কুমিল্লায় পেট্রলবোমায় বাস পুড়িয়ে মানুষ হত্যার এক মামলায় বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়াকে হাইকোর্টের দেয়া জামিন স্থগিত করেছেন আপিল বিভাগ।

সোমবার (২ জুলাই) প্রধান বিচারপতি সৈয়দ মাহমুদ হোসেনের নেতৃত্বাধীন আপিল বেঞ্চ এ আদেশ দেয়। আদেশে চার সপ্তাহের মধ্যে হাইকোর্টকে সংশ্লিষ্ট রুল নিষ্পত্তির নির্দেশও দেয়া হয়েছে।

এর আগে কুমিল্লার চৌদ্দগ্রাম থানার এই মামলায় গত ২৮ মে খালেদা জিয়ার ছয় মাসের অন্তর্বতীকালীন জামিন মঞ্জুর করেন বিচারপতি এ কে এম আসাদুজ্জামান ও বিচারপতি জে বি এম হাসানের সমন্বয়ে গঠিত হাইকোর্ট বেঞ্চ।

পরদিন ২৯ মে জামিন স্থগিত করেন আপিল বিভাগের চেম্বার জজ আদালত। একইসঙ্গে জামিন স্থগিত চেয়ে রাষ্ট্রপক্ষের করা আপিল আবেদনের শুনানির জন্য নিয়মিত বেঞ্চে পাঠিয়ে দেন।

গত ৩১ মে নির্ধারিত দিনে এ বিষয়ে শুনানি অনুষ্ঠিত হয়। ওইদিন জামিন স্থগিত করা হয় এবং মামলাটি শুনানির জন্য ২৪ জুন দিন ধার্য করা হয়। পরে ২৪ জুন শুনানি শেষে আদেশের জন্য আজকের দিন ঠিক করেন আদালত।

উল্লেখ্য, ২০১৪ সালের ৫ জানুয়ারি নির্বাচনে হেরে বিএনপি চেয়ারপারসন দেশব্যাপি হরতাল অবরোধ কর্মসূচি দিয়ে দেশ অচল করে দেন। হরতাল অবরোধ তখন এত কমন ব্যাপার ছিল যে এক পর্যায়ে হরতাল-অবরোধ ঢাকা শহরের মানুষের কাছে ডাল ভাতে পরিণত হয়। তারই ধারাবাহিকতায় ২০১৫ সালের জানুয়ারিতে ২০ দলীয় জোটের অবরোধ চলাকালে ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়কের চৌদ্দগ্রামে দুষ্কৃতকারীদের ছোড়া পেট্রলবোমায় আইকন পরিবহনের একটি বাসের ৬ যাত্রী অগ্নিদগ্ধ হয়ে মারা যান। পরবর্তীতে এ ঘটনায় মামলা দায়ের হয়।