সাদ্দাম হোসেনের পর আমেরিকার নেক্সট টার্গেট মাহমুদ আব্বাস!

ফুলকি অনলাইন: ফিলিস্তিনের প্রেসিডেন্ট মাহমুদ আব্বাসকে ক্ষমতা থেকে সরিয়ে দিতে ষড়যন্ত্র করছে যুক্তরাষ্ট্র। শুধু তাই নয়, ফিলিস্তিনিদের কাছে তাকে ভিলেন সাজাতেও দেশটি ষড়যন্ত্র করছে বলে অভিযোগ করেছেন ফিলিস্তিন ও ইসরাইলের মধ্যে শান্তি প্রতিষ্ঠায় মধ্যস্থতাকারী এক ঊর্ধতন কর্মকর্তা। তিনি ফিলিস্তিনের নাগরিক।

শুধু তাই নয়, ইসরাইল-ফিলিস্তিন শান্তি প্রক্রিয়ায় যুক্তরাষ্ট্র নিজেকে অযোগ্য করে তুলেছে বলেও অভিযোগ করেন তিনি। অভিযোগকারী ওই কর্মকর্তার নাম সায়েব এরেকাটস। গত রোববার তিনি এই মন্তব্য করেন।

মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের জামাতা ও প্রেসিডেন্টের উপদেষ্টা কুশনার এর আগের সপ্তাহে ইসরাইল, জর্দান, কাতার, মিসর ও সৌদি আরবের ঊর্ধতন কর্মকর্তাদের সাথে বৈঠক করেন। এইসব বৈঠকের প্রতিক্রিয়ায় সায়েব এই মন্তব্য করেন।

আল কুদুস সংবাদপত্রে দেওয়া এক সাক্ষাৎকারে কুশনার বলেন, খুব শিগগিরই ইসরাইল-ফিলিস্তিনের শান্তি প্রক্রিয়ার বিষয়ে একটি খসড়া প্রস্তাবনা দেবেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট ট্রাম্প। তবে সেই খসড়া প্রস্তাবণাতে মাহমুদ আব্বাসকে সংযুক্ত করা হবে কিনা তা নিশ্চিত করেননি তিনি।

কুশনারের সাক্ষাৎকার বিষয়ে সায়েব বলেন, তারা ফিলিস্তিনের শাসন ব্যবস্থা পরিবর্তন করতে চায়। বিশেষ করে মাহমুদ আব্বাসকে ক্ষমতা থেকে উৎখাত করতে চান তারা।

জেরুসালেমকে ইসরাইলের রাজধানী হিসেবে স্বীকৃতি দেওয়ার পরই যুক্তরাষ্টের সঙ্গে সব ধরণের সম্পর্ক চুকিয়ে ফেলেন আব্বাস। মূলত এর পর থেকেই আব্বাসকে উৎখাতে ষড়যন্ত্রে লিপ্ত হয় মার্কিনিরা।