পিআরও নিয়োগ দিতে পারবেন মন্ত্রী-প্রতিমন্ত্রীরাই

স্টাফ রিপোর্টার : মন্ত্রী-প্রতিমন্ত্রীদের পছন্দে বিভিন্ন মন্ত্রণালয় বা বিভাগে জনসংযোগ কর্মকর্তা (পিআরও) নিয়োগ দেওয়ার পথ বন্ধ করে আলোচিত আদেশটি বাতিল করেছে তথ্য মন্ত্রণালয়। আদেশ বাতিলের ফলে মন্ত্রী-প্রতিমন্ত্রী বা উপমন্ত্রীরা আগের মতো নিজ পছন্দেই পিআরও নিয়োগ দিতে পারবেন। পিআরও নিয়োগ ও পদায়ন এবং তাদের কাজের ‘সমন্বয় ও জবাবদিহিতা রক্ষার স্বার্থে’ গত ২১ মে তথ্য মন্ত্রণালয়ের সচিব আবদুল মালেক স্বাক্ষরিত পরিপত্র জারি করা হয়। মন্ত্রণালয় বা বিভাগের চাহিদার ভিত্তিতে তথ্য মন্ত্রণালয়ের তথ্য ও গণযোগাযোগ-১ শাখা বিভিন্ন মন্ত্রণালয়, বিভাগ, দপ্তর ও সংস্থায় জনসংযোগ কর্মকর্তা (পিআরও) নিয়োগ দেওয়া হবে বলে ওই আদেশে উল্লেখ ছিল।

পিআরও নিয়োগে মন্ত্রীদের পথ বন্ধ করে ওই আদেশ নিয়ে গণমাধ্যমে খবর প্রকাশিত হলে মন্ত্রীদের মধ্যে আলোচনা শুরু হয়। বিষয়টি নিয়ে তথ্য কর্মকর্তাদের মধ্যেও নেতিবাচক দৃষ্টিভঙ্গি প্রকাশ পায়। এরপরই আগের আদেশটি বাতিল করে মন্ত্রণালয়।

সোমবার (২৮ মে) তথ্য মন্ত্রণালয়ের সচিব আবদুল মালেক স্বাক্ষরিত আদেশে বলা হয়েছে, ২১ মে তারিখের পরিপত্রটি এতদ্বারা বাতিল করা হলো। তবে কেন বাতিল করা হয়েছে সে বিষয়ে কিছু উল্লেখ করা হয়নি আদেশে। সম্প্রতি তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি বিভাগের জনসংযোগ কর্মকর্তাকে বদলি ও নতুন কর্মকর্তা নিয়োগকে কেন্দ্র করে জটিলতা সৃষ্টির পরে পিআরও নিয়োগের নির্দেশনা জারি করা হয়েছিল। তথ্য মন্ত্রণালয়ের একজন কর্মকর্তা বলেন, নিজ কাজের সুবিধার্তে মন্ত্রী-প্রতিমন্ত্রী ও উপমন্ত্রীরা কর্মকর্তাদের পিআরও নিয়োগ দিয়ে দেন। নতুন নির্দেশনায় অনেক মন্ত্রী-প্রতিমন্ত্রীর নেতিবাচক মনোভাব থাকায় পরিপত্রটি বাতিল করেছে মন্ত্রণালয়।