বিশ্ব একাদশ’র হয়ে খেলছেন না সাকিব আল হাসান

৩১ মে লর্ডসে ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে অনুষ্ঠিত হতে যাওয়া চ্যারিটি টি-টোয়েন্টি ম্যাচে খেলছেন না সাকিব আল হাসান। আইসিসির ওয়েবসাইটে প্রকাশিত বিজ্ঞপ্তিতে এ খবর জানানো হয়েছে।  আইসিসি জানিয়েছে, ‘ব্যক্তিগত কারণ খেলছেন না বাংলাদেশ জাতীয় ওয়ানডে ও টি-টুয়েন্টি দলের অধিনায়ক’। ঠিক কী কারণে নিজেকে সরিয়ে নিলেন সাকিব, তা এখনও জানা যায়নি।

গত বছর হারিকেন ইরমা ও মারিয়ার আঘাতে ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে ক্যারিবিয়ান অঞ্চলের দুটি স্টেডিয়াম। ৩১ মে লর্ডসের ম্যাচ থেকে আয় করা টাকা খরচ করা হবে অ্যাঙ্গুইলার জেমস রোল্যান্ড ওয়েবস্টার ও ডোমিনিকার উইন্ডসর পার্ক স্টেডিয়ামের মেরামত কাজে। তহবিল সংগ্রহের এই টি-টোয়েন্টি ম্যাচকে আন্তর্জাতিক স্বীকৃতিও দিয়েছে আইসিসি।

ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে কুড়ি ওভারের এই ম্যাচে সাকিব ছাড়াও বাংলাদেশ থেকে সুযোগ পেয়েছেন তামিম ইকবাল। বাঁহাতি অলরাউন্ডার না খেলায় বাংলাদেশ থেকে একমাত্র প্রতিনিধি হিসেবে থাকলেন এই ওপেনার। তামিম ছাড়াও তারকা সমৃদ্ধ স্কোয়াডে আছেন এউইন মরগান, শহীদ আফ্রিদি, দিনেশ কার্তিক, রশিদ খান, মিচেল ম্যাকক্লেনাগন, শোয়েব মালিক, হার্দিক পান্ডিয়া ও থিসারা পেরেরার মতো খেলোয়াড়রা।

সাকিবের বদলি হিসেবে আইসিসি কোনও খেলোয়াড়ের নাম ঘোষণা না করলেও স্কোয়াডে অন্তর্ভুক্ত করেছে নেপালের স্পিনার সন্দীপ লামিচানেকে। ১৭ বছর বয়সী এই তরুণ বিশ্ব একাদশে সুযোগ পেয়ে ভীষণ খুশি।-আইসিসি ওয়েবসাইট।