শ্রমিক কল্যাণ তহবিলে ২৩ কোটি টাকা দিল গ্রামীণফোন

: সরকারের শ্রমিক কল্যাণ তহবিলে কোম্পানির গত অর্থবছরের লভ্যাংশের ২৩ কোটি ৬৬ টাকা জমা দিয়েছে গ্রামীণফোন লিমিটেড।  গ্রামীণফোনের প্রধান মানবসম্পদ কর্মকর্তা কাজী মুহাম্মদ শাহেদ বুধবার সচিবালয়ে শ্রম ও কর্মসংস্থান প্রতিমন্ত্রী মো. মুজিবুল হকের হাতে লভ্যাংশের টাকার চেক তুলে দেন।  এ সময় প্রতিমন্ত্রী মুজিবুল হক বলেন, বাংলাদেশ শ্রম আইন মেনে যদি প্রতিটি কোম্পানি তাদের নির্দিষ্ট অংশ শ্রমিক কল্যাণ ফাউন্ডেশনে প্রদান করে তবে আর কোনো শ্রমিক অসহায় থাকবে না। প্রতিমন্ত্রী শ্রম আইনের আলোকে প্রণীত ডাব্লুপিপিএফ এর বাস্তবায়নে বড় কোম্পানি ও শিল্প মালিকদের উদ্যোগী হবার আহ্বান জানান।  বাংলাদেশ শ্রমিক কল্যাণ ফাউন্ডেশন আইন অনুযায়ী গ্রামীণফোনের ২০১৭ সালের মোট লাভের ০৫ শতাংশের এক দশমাংশ তথা ২৩ কোটি ৬৬ টাকা শ্রমিক কল্যাণ ফাউন্ডেশন তহবিলে জমা দিল।  ২০১৩ সাল থেকে শ্রমিকদের কল্যাণের উদ্দেশ্যে প্রতি বছর লভ্যাংশের নির্দিষ্ট পরিমাণ অর্থ এ তহবিলে প্রদান করে আসছে কোম্পানিটি। এ পর্যন্ত গত ৫ বছরে তারা এ তহবিলে ৯৪ কোটি ২ লাখ ৫৮ হাজার ৬৮ টাকা প্রদান করে।  এর আগে গ্রামীণফোনের প্রধান মানবসম্পদ কর্মকর্তা কাজী মুহাম্মদ শাহেদের নেতৃত্বে তিন সদস্যের প্রতিনিধিদল সচিবালয়ে শ্রম ও কর্মসংস্থান প্রতিমন্ত্রী মো. মুজিবুল হকের সঙ্গে দেখা করেন।  চেক হস্তান্তর অনুষ্ঠানে শ্রম ও কর্মসংস্থান মন্ত্রণালয়ের সচিব আফরোজা খান, বাংলাদেশ শ্রমিক কল্যাণ ফাউন্ডেশনের মহাপরিচালক ড. আনিসুল আওয়াল, গ্রামীণফোনের পরিচালক সৈয়দ তানভীর হোসেন, উপপরিচালক কেএম সাব্বির আহমেদ প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।