সিংগাইরে রাস্তার পাশে ফ্যাক্টরীর বর্জ্য পুড়িয়ে পরিবেশ দূষণ, জনস্বাস্থ্য হুমকির মুখে

মাসুম বাদশাহ ,সিংগাইর(মানিকগঞ্জ) থেকে :জ্বলছে আগুন বর্জ্যের স্তুুপে উড়ছে ধোঁয়া , দূষিত হচ্ছে পরিবেশ।”  এরই মাঝে আগুনের লেলিহান শিখা ও ধোঁয়া উপেক্ষা করে স্কুল পড়–য়া কোমল মতি শিশু –ইমন, নিরব ও আরেফিন সেখান থেকে সংগ্রহ করছে রং-বেরংয়ের টুকরো কাগজ। তারা স্থানীয় জায়গীর বে-সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের দ্বিতীয় শ্রেণীর ছাত্র। বুধবার বেলা সাড়ে ১১ টায়  হেমায়েতপুর-সিংগাইর আঞ্চলিক মহাসড়কের জায়গীর বাসষ্ট্যান্ডের পূর্ব পাশে দেখা গেছে এ দৃশ্য।

স্থানীয়দের অভিযোগ,  মাসের পর মাস ধরে  প্রকাশ্যে চলছে  ব্রিটানিয়া গার্মেন্টস ফ্যাক্টরীর বর্জ্য পুড়ানোর মাধ্যমে পরিবেশ দূষণের এমন কাজ। প্রতিষ্ঠানটির প্রতিদিনের পরিত্যক্ত বর্জ্য ও কেমিক্যাল মিশ্রিত নানা রংয়ের কাগজ পুড়ানোর ফলে জায়গীর বাজারসহ আশ-পাশের পরিবেশ হয়ে উঠেছে অসহনীয়। ফলে এলাকার জনস্বাস্থ্য পড়েছে হুমকির মুখে। এ থেকে বিভিন্ন রোগের বিস্তার ঘটছে বলেও স্থানীয় একাধিক ব্যক্তি জানান।

জায়গীর বাজারের পান-বিড়ি বিক্রেতা জহিরুল ইসলাম (৩৫) বলেন,  রাস্তার পাশে আগুন ও সেখান থেকে অবিরাম নির্গত ধোঁয়ার গন্ধে বাজারে থাকা দায় হয়ে পড়েছে। ফ্যাক্টরীর উত্তর পাশের বাসিন্দা আক্কাছ  ড্রাইভার (৪৫) অভিযোগে করে বলেন, বার বার বলেও ফাক্টরীর বর্জ্য পুড়ানো বন্ধ করা যাচ্ছে না।

বিট্রানিয়া গার্মেন্টস ফ্যাক্টরীর মালিকের সাথে যোগাযোগের চেষ্টা করে তাকে পাওয়া যায়নি। তবে প্রশাসনিক কর্মকর্তা মাসুদ রানা অব্যবহ্নত কাগজ পোড়ানোর কথা স্বীকার করে বলেন, এ থেকে তেমন পরিবেশ দূষণ হচ্ছে না । এ ব্যাপারে সিংগাইর উপজেলা নির্বাহী অফিসার মোঃ যুবায়ের বলেন, আমি আপনার কাছ থেকেই প্রথম শুনলাম। যদি পরিবেশ দূষণের ঘটনা ঘটে থাকে তাহলে আইনানুগ ব্যবস্থা নেয়া হবে ।