বিদেশি সিগারেট বন্ধে হাইকোর্টের রুল!

স্টাফ রিপোর্টার: জনস্বাস্থ্য রক্ষায় ও রাজস্ব বৃদ্ধিতে চোরাইপথে বাংলাদেশে আসা বিদেশি সিগারেট বাজারজাতকরণ কেন বন্ধ হবে না জানতে চেয়ে রুল জারি করেছে হাইকোর্ট (রিট নং ২৮২৭/২০১৮)।  সরকারি সংশ্লিষ্ট প্রতিষ্ঠানকে রুলের জবাব দিতে নির্দেশ দেয়া হয়েছে। মাদকদ্রব্য ও নেশাবিরোধী কাউন্সিলের (মানবিক) নির্বাহী পরিচালক অ্যাডভোকেট পারভিন আক্তারের এক রিট আবেদনের প্রেক্ষিতে বিচারপতি নাঈমা হায়দারের সমন্বয়ে গঠিত ডিভিশন ব্রেঞ্চ গত ২৬ ফেব্রুয়ারি এ আদেশ দেন।  রিটে বলা হয় তামাক নিয়ন্ত্রণ আইন অনুযায়ী প্রতি সিগারেটের প্যাকেটে ছবিসহ বাংলায় ৫০ শতাংশ স্থানজুড়ে উভয় তলে সচিত্র স্বাস্থ্য সতর্কবাণী প্রদানের বিধান রয়েছে। অথচ অবৈধভাবে বা চোরাচালানের মাধ্যমে ব্যন্ডরোল ও অন্যান্য ট্যাক্স ফাঁকি দিয়ে বাজারজাত করছে বিদেশি সিগারেট। যার ফলে সিগারেটের মূল্য অতিসস্তা হওয়ায় এবং ছবিযুক্ত স্বাস্থ্য সতর্কবাণী না থাকায় আসক্ত হয়ে পড়ছে কলেজ বিশ্ববিদ্যালয়ের তরুণ-যুবসমাজ। ফলে যে উদ্দেশ্যে তামাক নিয়ন্ত্রণ আইন প্রণয়ন করা হয়েছে সে উদ্দেশ্য বাস্তবায়নে প্রতিবন্ধকতা সৃষ্টি হচ্ছে। এতে জনস্বাস্থ্য হুমকির পাশাপাশি সরকারও বিপুল পরিমাণ রাজস্ব হারাচ্ছে। উক্ত রিট আবেদনের পক্ষে সুপ্রিমকোর্টের সিনিয়র আইনজীবী হাসান আরিফ শুনানি করেন। শুনানি মহামান্য হাইকোর্ট জনস্বার্থে এ রুল জারি করেন।