আশুলিয়ায় ভ্যানচালককে পেটানোর অভিযোগে ট্রাফিক পুলিশ বক্সে হামলা, মারধর

65

 

আশুলিয়া প্রতিনিধি : আশুলিয়ায় ট্রাফিক পুলিশের হাতে মারধরে ভ্যানচালক আহত হওয়ার ঘটনায় মহাসড়ক অবরোধ করে বিক্ষোভ করেছে অটোরিকশা ও ভ্যানচালকরা। এ সময় অটোরিকশা ও ভ্যানচালকরা মহাসড়কে টায়ার জ্বালিয়ে দেয়। এ ছাড়া পাশের একটি ট্রাফিক পুলিশ বক্স ভাঙচুর চালায় ও ট্রাফিক পুলিশ সদস্যকে মারধর করে। পরে পুলিশের হস্তক্ষেপে অবরোধ তুলে নেয় তারা।

আজ সোমবার বিকাল ৫টার দিকে নবীনগর-চন্দ্রা মহাসড়কের শ্রীপুরে এ ঘটনা ঘটে। এসময় মহাসড়কের উভয় পাশে দীর্ঘ যানজটের সৃষ্টি হয়।  প্রায় দুই ঘন্টার পর সন্ধ্যা ৭টার দিকে আশুলিয়া থানা পুলিশের আশ্বাসে অবরোধ তুলে নেয় চালকরা।

চালকরা জানান, তুচ্ছ ঘটনায় ট্রাফিক পুলিশের এক এসআই নাজমুল হাসান নামে এক ভ্যানচালককে বেধড়ক মারধর করে মাথা ফাটিয়ে দেন। এ সময় উপস্থিত অন্য রিকশা ও ভ্যানচালকরা বিষয়টি দেখলে প্রতিবাদ শুরু করে ও অভিযুক্তদের বিচারের দাবিতে মহাসড়ক অবরোধ করে বিক্ষোভ শুরু করে। প্রায় সময়ই ট্রাফিক ও হাইওয়ে পুলিশসহ কমিউনিটি পুলিশ সদস্যরা নানা অজুহাতে অটো রিকশা ও ভ্যান আটকে রেকার বিল আদায় করে। প্রতিবাদ করলে মারধর করার অভিযোগ করেন ভুক্তভোগী চালকরা।

অভিযুক্ত সাভার ট্রাফিক পুলিশের এসআই হেলাল উদ্দিন বলেন, দুপুরে আশুলিয়ার বলিভদ্র অবৈধ অটোভ্যান ধরার সময় নাজমুল নামে একজন ভ্যানচালক পালিয়ে যাওয়ার চেষ্টা করে। পরে তাকে ধাওয়া দিয়ে ধরার চেষ্টা করলে ধস্তাধস্তি শুরু করে। এ সময় ওয়ারল্যাসের সাথে তার মাথায় একটু আঘাত লাগে। ঘটনার প্রায় দুই ঘণ্টা বিভিন্ন রিকশা ও ভ্যানচালকরা ডিইপিজেড সংলগ্ন ট্রাফিক পুলিশ বক্সে হামলায় চালিয়ে পুলিশকে মারধরসহ বক্সে ভাঙচুর চালায়।

এদিকে সাভার ট্রাফিকের পুলিশ পরিদর্শক আব্দুস সালাম জানায়, প্রাথমিকভাবে বিষয়টি জেনেছি। ঘটনা তদন্ত করে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেওয়া হবে।