বাংলাদেশ রবিবার 24, September 2017 - ৮, আশ্বিন, ১৪২৪ বাংলা

ভোটার হতে বাবা-মা-চাচা-ফুফুর এনআইডি লাগবে

প্রকাশিত ১৫:৩৭ জুলাই ১৭, ২০১৭

রোহিঙ্গা অধ্যুষিত বিশেষ এলাকায় ভোটার হতে হলে তার বাবা-মা, ফুফু, চাচার জাতীয় পরিচয়পত্র (এনআইডি) লাগবে বলে জানিয়েছেন নির্বাচন কমিশন (ইসি) সচিব মোহাম্মদ আব্দুল্লাহ। সোমবার দুপুরে রাজধানীর আগারগাঁওস্থ নির্বাচন ভবনে ভোটার তালিকা হালনাগাদসংক্রান্ত কেন্দ্রীয় কমিটির সমন্বয় সভা শেষে সচিব সাংবাদিকদের এসব কথা বলেন। ভোটার তালিকায় রোহিঙ্গা প্রবেশের বিষয়ে সচিব বলেন, রোহিঙ্গা ভোটার তালিকায় ঢুকে পড়ার বিষয়ে বিশেষ এলাকা আছে। বিশেষ এলাকার অন্তর্ভুক্ত ছিল ২০টি উপজেলা। এবার আরো ১০টি এলাকা চিহ্নিত করেছি। এই ৩০টি এলাকার জন্য বিশেষ কমিটি রয়েছে। বিশেষ এলাকার যে কার্য পরিধি আছে সেখানেও নির্ধারিত করা আছে কি কি বিষয় তারা দেখবেন। তিনি বলেন, কোনো বিদেশি নাগরিক যাতে অন্তর্ভুক্ত হতে না পারে, সে বিষয়ে তারা পদক্ষেপ নিতে পারেন, নিয়ন্ত্রণ করতে পারেন। কীভাবে নিয়ন্ত্রণ করবে তারও নির্দেশনা দেওয়া আছে। তার বাবা, মা, ফুফু ও চাচার জাতীয় পরিচয়পত্র দেখবে। এ ছাড়া আরো অন্যান্য পদক্ষেপ আছে সেগুলো পদক্ষেপ নিয়ে কমিটি যদি নিশ্চয়তা দেয় সেক্ষেত্রে বিদেশ থেকে আশা কোনো লোক ভোটার তালিকায় অন্তর্ভুক্ত হতে পারবে না।

  সচিব বলেন, তিনটি ধাপে মোট ৭২ দিনে বাড়ি বাড়ি গিয়ে নাগরিকদের তথ্য সংগ্রহ করা হবে। এরপর ২ জানুয়ারি খসড়া ভোটার তালিকা প্রকাশ করা হবে। ২০০০ সালের ১ জানুয়ারির আগে যাদের জন্ম, কিন্তু এখনো ভোটার হতে পারেননি, তারা এবার তালিকায় অন্তর্ভুক্ত হওয়ার সুযোগ পাবেন। এ ছাড়া কেউ ভোটার এলাকা পরিবর্তন করতে চাইলেও তা করতে পারবেন। তা ছাড়া ভোটার তালিকা থেকে মৃত ব্যক্তিদের নাম বাদ দেওয়া হবে।

সচিব আরো বলেন, ভোটার তালিকা হালনাগাদ কার্যক্রম সুষ্ঠু ও সুন্দরভাবে সম্পাদনের জন্য সাত পর্যায়ে সাত ধরনের কমিটি করা হয়েছে। কেন্দ্রীয় কমিটি, বিভাগীয় কমিটি, জেলা, উপজেলা, বিশেষ এলাকার জন্য আলাদা কমিটি, সিটি করপোরেশন এলাকার জন্য কমিটি, ক্যান্টনমেন্ট এলাকার জন্য কমিটি আছে। এবারের ভোটার তালিকায় নতুন ৫০ লাখ ভোটারকে অন্তর্ভুক্ত করার জন্য আমরা কাজ করছি।

বাড়ি বাড়ি গিয়ে তথ্য হালনাগাদের সময় নাম সংশোধন বা ভোটার এলাকা পরিবর্তন করতে পারবেন কি না জানতে চাইলে সচিব বলেন, ১৩ নম্বর ফরম পূরণ করে ভোটার এলাকা স্থানান্তর করা যাবে। তথ্য হালনাগাদে নাম সংশোধনের বিষয়টি রাখা হয়নি। নাম বা অন্য যেকোনো সংশোধনের জন্য যেকোনো দিন নির্বাচন অফিসে যেতে হবে। আর এটা সারা বছরই করা যাবে।

সারা বছরই যে কেউ তার ভোটার আইডি নতুন করে  করতে পারবে, সংশোধনের আবেদন করতে পারবে, সংযোজন-বিয়োজন করতে পারে, কোনো ত্রুটি-বিচ্যুতি থাকলে যেকোনো সময় উপজেলা নির্বাচন অফিসে এসে আবেদন করতে পারবেন বলে জানান সচিব।

নারী ভোটার বাড়ানোর বিষয়ে সচিব বলেন, নারী ভোটার বাড়ানোর জন্য আমরা বিশেষ উদ্যোগ হাতে নিয়েছি। মহিলাবিষয়ক মন্ত্রী এবং সচিবের সঙ্গেও এ বিষয়ে কথা বলেছি। মহিলাবিষয়ক মন্ত্রণালয়াধীন যে অধিদপ্তরগুলো আছে, সেই অধিদপ্তরগুলোর বিভাগ, জেলা, উপজেলা লেভেলের কর্মকর্তারা আছেন তাদের আমরা কমিটিতে অন্তর্ভুক্ত করার চেষ্টা করেছি। এ ছাড়া নারী নেতৃত্বে যারা আছেন বিশেষ করে নারী জনপ্রতিনিধি, এনজিও কর্মীদের এই কার্যক্রমে সহযোগিতা আমরা চেয়েছি। সভায় সকল বিভাগীয় কমিশনার, পুলিশ সদরদপ্তরের প্রতিনিধি, বিভিন্ন মন্ত্রণালয়ের প্রতিনিধি, ইসির ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন।

 


পাঠকের মন্তব্য (০)

লগইন করুন


এ সম্পর্কিত খবর

আশুলিয়ায় মা সমাবেশ অনুষ্ঠিত

আশুলিয়ায় মা সমাবেশ অনুষ্ঠিত

 আশুলিয়ায় মা সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়েছে। শনিবার দুপুরে আশুলিয়ার ঘোড়াপীর মাজার সংলগ্ন আলহাজ্ব জাফর ব্যাপারী উচ্চ বিদ্যালয়ের

বিএনপির সঙ্গে কোনো সমঝোতা হবে না: প্রধানমন্ত্রী

বিএনপির সঙ্গে কোনো সমঝোতা হবে না: প্রধানমন্ত্রী

 প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেছেন, বিএনপির সঙ্গে আর কোনো রাজনৈতিক সমঝোতা হবে না। আর ভবিষ্যতেও যেনো

চালের দাম পাইকারিতে কমছে, খুচরা বাজারে প্রভাব নেই

চালের দাম পাইকারিতে কমছে, খুচরা বাজারে প্রভাব নেই

 চাল ব্যবসায়ী ও সরকারের মধ্যে বৈঠক, প্রশাসনের বিশেষ নজরদারি ও অভিযান শুরুর পর রাজধানীর পাইকারি


ছি! ছি! অং সাং সূচী ! ছি ! ছী! মিয়ানমার বাহিনী !

ছি! ছি! অং সাং সূচী ! ছি ! ছী! মিয়ানমার বাহিনী !

মাওলানা মুফতী মো:ওমর ফারুক যুগে যুগে মানবতা মনুষত্ব মানবিক মূল্যবোধ লজ¦াবোধ পৃথিবীর অনেক জালিমের কাছে

মিয়ানমারের ওপর যুক্তরাষ্ট্র-ভারতের চাপ সবচেয়ে জরুরি: জয়

মিয়ানমারের ওপর যুক্তরাষ্ট্র-ভারতের চাপ সবচেয়ে জরুরি: জয়

 মিয়ানমারের রাখাইন রাজ্যে বিনা প্ররোচণায় রোহিঙ্গাদের ওপর নিপীড়ন শুরুর পর, পালিয়ে আসা রোহিঙ্গাদের নিরাপদ আশ্রয়স্থল

দেশের কিছু স্থানে বৃষ্টি হলেও গরম বাড়তে পারে

দেশের কিছু স্থানে বৃষ্টি হলেও গরম বাড়তে পারে

 মৌসুমি বায়ু বাংলাদেশের ওপর কম সক্রিয় এবং উত্তর বঙ্গোপসাগরে দুর্বল অবস্থায় বিরাজ করছে। এর প্রভাবে


‘যেকোনো সময়’ কিছু শরণার্থী ফেরানোর প্রক্রিয়া শুরু: সু চি

‘যেকোনো সময়’ কিছু শরণার্থী ফেরানোর প্রক্রিয়া শুরু: সু চি

 কিছু শরণার্থীকে ফেরত আনার জন্য ‘যেকোনো সময়’ এই প্রক্রিয়া শুরু হতে পারে এজন্য যাচাই-বাছাই প্রক্রিয়া

এবারও সার্ক সম্মেলন নিয়ে অনিশ্চয়তা

এবারও সার্ক সম্মেলন নিয়ে অনিশ্চয়তা

গত বছরের পর এবারও দক্ষিণ এশীয় আঞ্চলিক সহযোগিতা সংস্থার (সার্ক) শীর্ষ সম্মেলন নিয়ে অনিশ্চিয়তা দেখা

রোহিঙ্গাদের জন্য ৬ মাসে লাগবে ২০ কোটি ডলার

রোহিঙ্গাদের জন্য ৬ মাসে লাগবে ২০ কোটি ডলার

মিয়ানমারের সেনাবাহিনী ও দেশটির বৌদ্ধ মগদের সহিংসতায় বাংলাদেশে পালিয়ে আসা রোহিঙ্গাদের জন্য আগামী ছয় মাসে



আরো সংবাদ





আশুলিয়ায় মা সমাবেশ অনুষ্ঠিত

আশুলিয়ায় মা সমাবেশ অনুষ্ঠিত

২৩ সেপ্টেম্বর, ২০১৭ ১৮:৫৬




হজযাত্রীদের ৫০ শতাংশ দেশে ফিরেছেন

হজযাত্রীদের ৫০ শতাংশ দেশে ফিরেছেন

২৩ সেপ্টেম্বর, ২০১৭ ১৪:৫৫





ব্রেকিং নিউজ





আশুলিয়ায় মা সমাবেশ অনুষ্ঠিত

আশুলিয়ায় মা সমাবেশ অনুষ্ঠিত

২৩ সেপ্টেম্বর, ২০১৭ ১৮:৫৬




দিনাজপুরে বজ্রপাতে ৮ জনের মৃত্যু

দিনাজপুরে বজ্রপাতে ৮ জনের মৃত্যু

২৩ সেপ্টেম্বর, ২০১৭ ১৭:৪৫